পাথর ছোঁড়াকে কেন্দ্র করে রণক্ষেত্র আল-আকসা, আহত ১৫২

লেখক:
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

ইসরায়েলের অধিকৃত পূর্ব জেরুজালেমে পবিত্র আল–আকসা মসজিদ প্রাঙ্গণে দেশটির পুলিশ ও ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীদের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। পুলিশের হামলায় ১৫২ জন ফিলিস্তিনি আহত হয়েছেন। এ ছাড়া কয়েক শ ফিলিস্তিনিকে আটক করেছে পুলিশ। খবর আল–জাজিরার।

পবিত্র রমজান মাস চলার মধ্যেই আল–আকসায় ইসরায়েলি পুলিশের অভিযানকে কেন্দ্র করে আজ শুক্রবার সকালে এ সংঘর্ষ বাধে। মসজিদুল আকসা বা বায়তুল মুকাদ্দাস সারা বিশ্বের মুসলিমদের কাছে তৃতীয় পবিত্রতম স্থান। আর ইহুদিদের কাছে এটি খ্যাত টেম্পল মাউন্ট নামে। তারাও এটিকে তাদের অন্যতম পবিত্র স্থান হিসেবে বিবেচনা করে থাকে। সংঘর্ষের ঘটনা নিয়ে ইসরায়েলি পুলিশের দাবি, আল–আকসা মসজিদের আরেক প্রাঙ্গণে ইহুদিদের প্রার্থনার জায়গায় পাথর ছুড়ছিলেন একদল বিক্ষোভকারী। তাঁদের ছত্রভঙ্গ করতে সেখানে প্রবেশ করে পুলিশ। আটক করা হয় ৩০০ জনকে। তবে ফিলিস্তিনি সূত্র বলছে, ৪০০ জনের বেশি ফিলিস্তিনিকে আটক করা হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা বলছেন, ইসরায়েলি নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যরা ফিলিস্তিনি বিক্ষোভকারীদের ওপর রাবার বুলেট ছুড়েছে। বিক্ষোভকারীরাও ইসরায়েলি বাহিনীকে লক্ষ্য করে পাথর ছোড়েন।

সরায়েলি পুলিশের ভাষ্য, আল-আকসার আরেক প্রান্তে ইহুদিদের প্রার্থনার জায়গায় পাথর ছোঁড়ে ফিলিস্তিনিরা এবং গতকাল ফজরের নামাজ শেষে ফিলিস্তিনিদের ‘সহিংস’ ভিড় ঠেকাতে তারা মসজিদ প্রাঙ্গণে ঢুকে তাঁদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়। সহিংসকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ রাবার বুরেট ছুঁড়ে।